লকডাউনের এই সময় করোনা আতঙ্ক থেকে নিরাপদ থাকতে যা করতে পারেন

করোনা ভাইরাস বৈশ্বিক মহামারিতে পরিণত হয়েছে বটে, কিন্তু এ নিয়ে আতঙ্ক ছড়িয়ে বা নিজে আতঙ্কিত হয়ে কোনো লাভ নেই৷ বরং এই মুহূর্তে নিজেকে ফিট রাখা এবং সচেতন থাকাটাই বেশি জরুরি৷

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো জরুরি
শারীরিকভাবে যারা দুর্বল এবং যাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম তাদেরকে যে কোনো ধরনের ভাইরাস খুব সহজে আক্রমণ করতে পারে৷ তাই সকলেরই এখন নিয়মিত যথেষ্ট পরিমাণে ভিটামিন সি সমৃদ্ধ খাবার, লেবু এবং বিভিন্ন ফল খাওয়া প্রয়োজন৷

আদা ও লেবু পানি
এক গ্লাস গরম পানিতে দুই টুকরো আদা এবং একটু লেবুর রস দিয়ে দিন৷ তারপর ধীরে ধীরে তা পান করুন৷ এভাবে দিনে কয়েক গ্লাস পানি পান করতে পারেন৷ তাছাড়া অন্যান্য সময়ের চেয়ে এখন বেশি পানি পান করা জরুরি৷

জিঙ্ক
এখন জরুরি ভিটামিন ডি-৩ এবং জিঙ্ক যা, শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা ঠিক রাখে৷ রাতে ১৫ মিলিগ্রাম জিঙ্ক ট্যাবলেট সেবন করতে পারেন৷ তাছাড়া বীজ জাতীয় খাবারে জিঙ্কের উপস্থিতি যথেষ্ট পরিমাণে রয়েছে৷

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে করোনা ভাইরাসকে দূরে রাখতে এই পরামর্শগুলো দিয়েছেন জার্মান চিকিৎসক ডা. আনে ফ্লেক৷

নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখুন
জার্মানির রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান রবার্ট কখ ইনস্টিটিউটের প্রেসিডেন্ট ডা. লোথার এইচ ভিলার এক টিভি সাক্ষাৎকারে জনগণকে যে কোনো ধরনের জনসমাগম থেকে দূরে থাকার অনুরোধ করেছেন৷ যে কোনো মানুষের কাছ থেকে কমপক্ষে দুই মিটার দূরত্ব বজায় রাখা জরুরি৷

জীবাণু থেকে সাবধান
এই মুহূর্তে ভালোভাবে হাত ধোয়া খুবই জরুরি, তবে তা শুধু নিজের বাড়ি, অফিস বা কাছাকাছি কোনো বাথরুম থাকলেই সম্ভব৷ তাই বাইরে থাকাকালীন সময়ে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করার পরামর্শ দিয়েছেন আরেক জার্মান ডাক্তার ডা. এরন্সট টাবোরি৷

পয়সা বা কয়েন থেকে সাবধান!
হাজারো হাত ঘুরে পয়সা আমাদের হাতে আসে৷ আর সেকারণেই কয়েন বা ভাঙতি পয়সায় যে জীবাণু থাকে তা হয়তো অনেকেরই জানা৷ তাই কেনাকাটার সময় এদিকেও সচেতন থাকার পরামর্শ রয়েছে ডা. টাবোরি৷

Loading...